• Hillbd newsletter page
  • Hillbd rss page
  • Hillbd twitter page
  • Hillbd facebook page
সর্বশেষ
কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীদের উপর হামলা ও শিক্ষকদের লাঞ্ছিতের ঘটনায় পিসিপি’র নিন্দা                    বান্দরবানের কোন পাহাড় থেকে আর এক কোদাল মাটিও কাটা যাবে না-জেলা প্রশাসক                    মাটিরাঙ্গায় দুর্বৃত্তের গুলিতে যুব সমিতির কর্মী নিহত                    ঢাকায় গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম ও শ্রমজীবী ফ্রন্টের বিক্ষোভ                    সাংস্কৃতিক চর্চায় জড়িত থাকলে কোন যুবক মাদকাসক্ত হবে না-সৌরেন্দ্র নাথ চক্রবর্তী                    খাগড়াছড়িতে জাতীয় ভিটামিন এ প্লাস ক্যাম্পেইনের উদ্বোধন                    রাঙামাটিতে রথযাত্রা উৎসব                    দেশবরেণ্য চিত্রশিল্পীদের নিয়ে রাঙামাটিতে সপ্তাহ ব্যাপী আর্ট ক্যাম্পের উদ্বোধন                    লামায় ২০ বসত ঘর গুঁড়িয়ে দিয়েছে বন্য হাতির পাল                    রাঙামাটিতে আস-সুন্নাহ ফাউন্ডেশনের যাত্রা শুরু                    দেশবরেণ্য চিত্রশিল্পীদের নিয়ে রাঙামাটিতে শনিবার থেকে সপ্তাহ ব্যাপী আর্ট ক্যাম্প শুরু হচ্ছে                    খাগড়াছড়িতে চঞ্চুমনি চাকমার উপর হামলার প্রতিবাদে তিন সংগঠনের বিক্ষোভ-সমাবশে                    কাপ্তাইয়ে দুদনিের জেন্ডার ভিত্তিক সহিংসতার শীর্ষক প্রশিক্ষণ কর্মশালার উদ্বোধন                    খাগড়াছড়িতে দুর্বৃত্তের হামলায় উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান চঞ্চুমনি গুরুতর আহতঃ আটক ৪                    পার্বত্যাঞ্চলের জনগোষ্ঠীদের উন্নয়নের মূলধারায় নিয়ে যেতে সরকার কাজ করছে-জেলা প্রশাসক                    কাপ্তাই কাঠ ব্যবসায়ী সমবায় সমিতির নির্বাচন সম্পন্ন                    ড্রাগন ফল চাষে সফল চাষী নাইক্ষ্যংছড়ির তরুন ইউসুফ আজাদ                    জাতীয় ভিটামিন এ প্লাস ক্যাম্পেইন উপলক্ষে রাঙামাটিতে সংবাদ সন্মেলন                    মাটিরাঙ্গায় ইউপিডিএফ কর্মীকে গুলি করে হত্যা                    বিলাইছড়িতে বিশ্ব জনসংখ্যা দিবস পালন                    রাঙামাটিতে ফার্মাসিষ্ট প্রশিক্ষণ কেন্দ্র স্থাপনের দাবি                    
 

পাহাড় ধস ট্র্যাজডি
কাপ্তাইয়ের ছোট্ট রোহানের চট্টগ্রামে গিয়ে আর ঈদের জামাকাপড় কিনা হল না

কাপ্তাই প্রতিনিধি : হিলবিডি টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published: 23 Jun 2017   Friday

কাপ্তাই উপজেলার ছোট্ট রোহান(৬) পাহাড় ধসের ঘটনার ৩ দিন আগে তার বাবার কাছে বায়না ধরেছিল ঈদের জামা কিনতে সে এবার চট্টগ্রাম শহরে যাবে। বাবা মো সবুজ মিয়া রাজি হয়ে যান। কিন্তু রোহানের আবদার মা রুবিনাকে সাথে নিতে হবে।।বাবা সবুজ মিয়া রাজি হয়ে যান।ছোট্ট রোহানের শেষ আবদার দাদু নুরনবী(৬৫) কে নিয়ে চট্টগ্রাম শহরে যাবে।

 

বাবা সবুজ তাতে রাজি হন। কথা ছিল গেল ১৬ শুক্রবার সবাই মিলে চট্টগ্রাম শহরে যাবে। কিন্তু ১৩ জুনের প্রয়লঙ্কারি ঝড়,তুফান এবং পাহাড় ধস সব ধ্বংস করে দিল। মাটিচাপা পড়ে রোহান, তার মা রুবিনা,রোহাদের দাদু নুরনবী সবাই একসাথে মৃত্যুবরণ করেন। সবুজ মিয়া সেদিন কর্মস্থলে থাকায় প্রাণে বেঁচে যান। কিন্তু প্রাণে বাঁচলে ও তার সবকিছু শেষ হয়ে গেছে।

 

সবুজের মতো কাপ্তাই এর পাহাড়ধসে মৃত অনেক পরিবারের থেকেও ঈদ হারিয়ে গেছে। একইভাবে কাপ্তাই এ পাহাড় ধসে অাহত ব্যাক্তি এবং ঘরবাড়ি হারোনো লোকজনের থেকে ঈদ অানন্দ হারিয়ে গেছে।

 

পাহাড় ধসে রাঙামাটির কাপ্তাইয়ে যেদিকে চোখ যায় শুধু ধ্বংসলীলা। পাহাড় ধস,রাস্তা ধস,ভেঙ্গে পড়েছে সকল যোগাযোগ ব্যবস্হা। গেল ১০ দিনেও সর্বত্র যোগাযোগ ব্যবস্হা স্বাভাবিক হয়নি। কাপ্তাইয়ে ১৮টি তাজা প্রাণ অকালে ঝরে গেছে। আহত হয়েছেন কয়েক শতাধিক। ঘরবাড়ি ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে সহস্রাধিক। কত টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে তা নিরূপণ করা এখনও সম্ভব হয়নি।


এই ধ্বংসের মধ্যেও মুসলিম ধর্মালম্বীদের সবচেয়ে বড় উৎসব ঈদুল ফিতর দৌঁড় গোড়ায় এসে হাজির।অন্যান্য সময় এ রকম ঈদের সময় পাহাড়ে বসবাসকারী মানুষের কেনাকাটায় ধুম পড়তো। ঈদে অন্যান্য ধর্মাবলম্বীরাও ঈদের আনন্দ থেকে বঞ্চিত হতেন না। তারাও পছন্দের জামা কাপড় কিনে ঈদের দিন পরিচিতজনদের বাসায় ঘুরে বেড়াতেন। তবে এবার সব কিছু স্বপ্ন হয়ে গেছে।।ঈদের আনন্দ পাহাড় থেকে হারিয়ে গেছে।পার্বত্য এলাকার বড় বাজার গুলোতে ঈদের কেনাকাটা নেই।।ব্যবসায়ীরা নতুন কোন পসরা সাজাতে পারছেন না। প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের ভরপুর পাহাড় যেন অন্ধকার ডুবে গেছে।।কারোর মুখে হাসি নেই কোথাও অানন্দ নেই।

 

কাপ্তাই পাহাড় ধসে মৃত অাবুল হোসেন,রোকসানা বেগম, রমজান অালীসহ অারো অনেক পরিবারের সাথে কথা বলে তারা জানান ঈদের অানন্দ নয় কিভাবে বেঁচে থাকবো কোথায় মাথা গুজাবো সেই চিন্তায় অামরা অস্থির।


কাপ্তাই উপজেলা মানবাধিকার কমিশনের সভাপতি খোরশেদুল আলম কাদেরী বলেন মৃত পরিবারের জন্য বিভিন্ন সংস্থা ও ব্যাক্তিগতভাবে কিছু সাহায্য সহোযোগিতা করেছেন।কিন্তু পাহাড় ধসে ঘরবাড়ি নিশ্চিহ্ন হয়ে যাওয়া পরিবার গুলোকে ঘর তোলার ব্যাপারে সকলে সহোযোগিতার হাত প্রসারিত করতে হবে। ঈদের দিন মৃত পরিবারদের একটু শান্তনা দিলে ঐ পরিবারের হয়তো কিছুটা সান্তনা পাবে।


কাপ্তাই উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান দিলদার হোসেন, কাপ্তাই নৌ বাহিনী স্কুলের প্রধান শিক্ষক স্কাউটস্ লিডার এম জাহাঙ্গীর আলম বলেন এবারের ঈদটা এই অঞ্চলের মানুষের জন্য বেদনাদায়ক। সমাজের সকল বিত্তবান লোকরা এগিয়ে আসলে হয়তোবা তারা এই ঈদে প্রিয়জনদের সাথে একটু ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করতে পারবেন।
--হিলবিডি২৪/সম্পাদনা/সিআর.

এই বিভাগের সর্বশেষ
আর্কাইভ