এরশাদ ও খালেদা জিয়া আমলে সবগুলো যোগ করলেও শেখ হাসিনার সময়কালের উন্নয়নের সমান হবে না-আইনমন্ত্রী

Published: 24 Jul 2022   Sunday   

আইনমন্ত্রী আনিসুল হক এমপি বলেছেন,‘জিয়া, এরশাদ, খালেদার আমলের সবগুলো যোগ করলেও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সরকারের সময়কালের উন্নয়নের সমান হবে না। এটি নিছক আমার মুখের কথা হয়, উন্নয়ন তথ্য ও পরিসংখ্যান তাই বলে।

 

তিনি আরো বলেন, বিএনপি-জামাত ও তত্বাবধায়ক সরকার ২০০১ থেকে ২০০৮ সাল পর্যন্ত সাড়ে ৭ বছরে আইন ও বিচার বিভাগের জন্য ব্যয় করেছে মাত্র ১৬৫০ কোটি টাকা, এরমধ্যে উন্নয়ন ব্যয় ছিল মাত্র ২৫৩ কোটি টাকা। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার আইন ও বিচার বিভাগের জন্য প্রতি বছরে গড়ে প্রায় ১৬৫০ কোটি টাকা ব্যয় করেছে আর উন্নয়ন বরাদ্দ দিয়েছে ৪৩৬ কোটি টাকা।’


রোবববার রাঙামাটিতে নবনির্মিত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট (সিজেএম) আদালত ভবনের উদ্বোধনকালে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আইনমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

 

আইনমন্ত্রী আরো বলেন, ২০০৯ সালে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সরকার গঠন করার পর বিচার বিভাগের স্বাধীনতার নিশ্চিত করাসহ বাস্তবমুখী পদপে গ্রহণ করেন। আজ (রোববার) বিচার বিভাগের এজলাস সংকট অনেকটাই নিরসন হয়েছে, বিচারক সংকট কমে এসেছে। ৬৪ জেলার মধ্যে প্রথম পর্যায়ে ৪২টি জেলায় সিজেএম আদালত ভবন নির্মাণের কাজ শেষ পর্যায়ে রয়েছে। আজ রাঙ্গমাটিসহ ৩৪টি জেলায় সিজেএম আদালতের নতুন ভবন উদ্বোধন করা হলো। আমরা আশাকরছি, আগামী বছরের মধ্যে বাকী জেলার কাজ সমাপ্ত হবে, এরমধ্যে খাগড়াছড়ি-বান্দরনান জেলাও রয়েছে।

 

জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আইন মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. গোলাম সারওয়ারের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন খাদ্য মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি দীপংকর তালুকদার এমপি, রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অংসুই প্রæ চৌধুরী, ৬৪ জেলা সদরে সিজেএম আদালত ভবন নির্মাণ প্রকল্পের প্রধান সমন্বয়ক ও যুগ্ম সচিব বিকাশ কুমার সাহা, রাঙামাটি জেলা ও দায়রা জজ মো. নুরুল ইসলাম, রাঙ্গামাটির চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ ফারুক, গণপূর্ত রাঙামাটি সার্কেলের তত্ত¡াবধায়ক প্রকৌশলী একিউএম শাহজালাল মজুমদার, জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি মোখতার আহম্মদ, সাধারণ সম্পাদক রাজীব চাকমা প্রমুখ।


এদিকে, রাঙামাটিতে নতুন আদালত ভবন উদ্বোধনের মধ্য দিয়ে এজলাস সংকট নিরসন, দাপ্তরিক কাজের সুবিধাসহ পূর্ণাঙ্গ চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত প্রতিষ্ঠিত হওয়ায় বিচারপ্রার্থীদের ন্যায় বিচার পাওয়া আরো সহজতর হবে বলে জানায় সংশ্লিষ্টরা।

 

উল্রেখ্য, রাঙামাটি গণপূর্ত বিভাগের বাস্তবায়নে নবনির্মিত পাঁচতলা বিশিষ্ট আদালত ভবনে ১৩টি এজলাস রয়েছে। যেখানে আদালতের বিচারকার্য অনুষ্ঠিত হবে। এছাড়া এই ভবনে কনফারেন্স রুম, জেলা লিগ্যাল অ্যাইড অফিস, বিচারকদের চেম্বার, খাস কামরা, মালখানা, অপেক্ষমাণ কক্ষ, ফিডিং রুমসহ অন্যান্য প্রশাসনিক ক রয়েছে। ভবনে দুইটি লিফট রয়েছে। আদালত ভবন নির্মাণে ২০ কোটি ৩২ লাখ টাকা ব্যয় হয়েছে। রাঙামাটিসহ এ পর্যন্ত সারাদেশে মোট ৩৪টি নতুন সিজেএম আদালতের উদ্বোধন করা হয়েছে।

--হিলবিডি২৪/সম্পাদনা/সিআর.

উপদেষ্টা সম্পাদক : সুনীল কান্তি দে
সম্পাদক : সত্রং চাকমা

মোহাম্মদীয়া মার্কেট, কাটা পাহাড় লেন, বনরুপা, রাঙামাটি পার্বত্য জেলা।
ইমেইল : [email protected]
সকল স্বত্ব hillbd24.com কর্তৃক সংরক্ষিত