• Hillbd newsletter page
  • Hillbd rss page
  • Hillbd twitter page
  • Hillbd facebook page
সর্বশেষ
বর্তমান সরকারই দেশের ও শিক্ষার উন্নয়নে কাজ করেছে-দীপংকর তালুকদার এমপি                    রাঙামাটিতে বিভিন্ন ক্লাবে অভিযান চালিয়ে ১২ জনকে জরিমানা                    সন্ত্রাস ও চাঁদাবাজ মুক্ত কাপ্তাই গড়া হবে-লেঃ কর্নেল তৌহিদ উজ্জামান                    পার্বত্য এলাকায় মোনঘর প্রতিষ্ঠানটি একটি বাতিঘর-দীপংকর তালুকদার এমপি                    সুভাষ চাকমা সভাপতি, পিন্টু চাকমা সাধারণ সম্পাদক ও ক্লিন চাকমা সাংগঠনিক সম্পাদক নির্বাচিত                    চন্দ্রঘোনায় শিক্ষক-শিক্ষিকাদের নিয়ে আরএইচস্টেপের সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত                    পানছড়িতে পৌনে নয় কোটি টাকার প্রকল্প নেওয়া হয়েছে--বাসন্তী চাকমা এমপি                    রাঙামাটিতে পার্বত্য চট্টগ্রাম এলাকায় পানীয় জলের উৎস উন্নয়নের লক্ষ্যে জেলা পর্যায়ে এ্যাডভোকেসী সভা                    পার্বত্যাঞ্চলের প্রান্তিক জনগোষ্ঠীদের মৌলিক অধিকার নিশ্চিত করতে সরকার কাজ করে যাচ্ছে                    রাঙামাটি প্রাণীসম্পদ দপ্তরে জেলা পরিষদের অর্থায়নে ভেটেরিনারি ঔষুধ বিতরণ                    রাঙামাটি পৌরসভার ভারপ্রাপ্ত মেয়রের দায়িত্ব পেলেন জামাল উদ্দিন                    পানছড়িতে ইপসা ‘শো’ প্রকল্পের পুরস্কার বিতরণ ও সম্মাননা প্রদান                    বাঘাইছড়িতে দুর্বৃত্তদের গুলিতে এমএন লারমা গ্রুপের জনসংহতি সমিতির দুই কর্মী নিহত                    রাঙামাটিতে অ্যাকটিভ মাদার্স ফোরাম এর ভূমিকা ও করণীয় শীর্ষক কর্মশালা                    রাঙামাটিতে ৫৮ শতক জমির মালিকানা নিয়ে দুই দেওয়ানের পাল্টাপাল্টি সংবাদ সম্মেলন                    রাঙামাটিতে ধুমপান করার দায়ে ৬ব্যক্তিকে জরিমানা                    রুমা থেকে ৬ গ্রামবাসীকে অপহরণ করেছে দুর্বৃত্তরা                    রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যানের সাথে গুর্খা সম্প্রদায়ের সৌজন্য সাক্ষাৎ                    বিলাইছড়িতে বেতের ঝুড়ি ও পুঁতির শোপিস তৈরি প্রশিক্ষণ শুরু                    বিলাইছড়িতে মাদক, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ প্রতিরোধ কর্মশালা                    কাপ্তাইয়ে বঙ্গবন্ধু অনুর্ধ্ব ১৭ ফুটবল টুর্নামেন্টে চ্যাম্পিয়ন কাপ্তাই ইউনিয়ন পরিষদ                    
 

‘বৈসুক-সাংক্রাই-বিঝু’র প্রধান আকর্ষন ছিল ‘পাজন’

নূতন ধন চাকমা, পানছড়ি : হিলবিডি টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published: 18 Apr 2019   Thursday

পাহাড়ীদের প্রধান সামাজিক ঊৎসব  ‘বৈসুক-সাংক্রাই-বিঝু’র  প্রধান আকর্ষন ছিল ‘পাজন’ তরকারী। মুল বিঝু ও গজ্জ্যাপজ্জ্যা দিনে ধনী-গরীর প্রতিটি ঘরে ঘরে খাবার পরিবেশনের অগ্রাধিকার পেয়েছে ‘পাজন’ তরকারী।

 

পানছড়ি মির্জাবিল গ্রামের কার্বারী বয়োবৃদ্ধ মধু মঙ্গল চাকমা বলেন, ‘বিঝু’ উৎসবের প্রধান আকর্ষন ‘পাজন’ তরকারী। এর পরে মদ, জগরা, বিন্নিপিঠা, সান্ন্যে পিঠা,বরাপিঠা, তরমুজ, সেমাই পরিবেশন করা হয়।

 

মূলত ২৪ প্রকার কাঁচা তরকারী(কাঠাল,আলু,ফলমূল,সবুজ শাকসবজি) মিশ্রিত করে ‘পাজন’ তৈরী করার রেওয়াজ রয়েছে। আমাদের সময়ে ২৪ প্রকার থেকে সবজি মিশ্রিত করে তৈরী করা হয় পাজন।

 

তিনি আরো বলেন, আগেকার দিনের মতো এখন আর ‘পাজন’ তরকারী রান্না করা হয় না। ২৪ প্রকার কাঁচা তরকারী মিলে ‘পাজন’ তৈরী করার রেওয়াজ থাকলেও বর্তমানে অনেকেই ২৪ প্রকার থেকে কম প্রকার কাঁচা তরিতরকারী মিলে ‘পাজন’ তৈরী করছে। তবে শহরে আদিবাসীরা ৫/৭প্রকার কাঁচা তরকারী দিয়ে ‘পাজন’ তৈরী করলেও গ্রামের লোকজন ২৪ প্রকারের বেশী কাঁচা তরকারী দিয়ে এ পাজন তৈরী করে থাকে।

 

অন্যান্য দিনে পেট ভরে তরকারী খেলে পেট খারাপ হওয়ার সম্ভাবনা থাকলেও বিঝু’র দিনে পেটভরে ‘পাজন’ খেলেও পেট খারাপ হয় না।

 

পানছড়ি ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ সমীর দত্ত চাকমা ও পূজগাং মূখ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শান্তিময় চাকমা বলে- বিঝু দিনে প্রতিটি আদীবাসীকে কমপক্ষে ৭টি ঘরে ‘পাজন’ খাওয়ার রেওয়াজ রয়েছে। তাই  আদিবাসী নারীরা সু-স্বাদু করে ‘পাজন’ তরকারী রান্নার প্রতিযোগিতায় মেতে উঠেছিল। ধনী-গরীব সবার ঘরে রান্না করা হয়েছে পাজন। উৎসবের দিনগুলোতে সবার বাড়ির দ্বার ছিল উম্মুক্ত। বাড়ির সামর্থ্য অনুযায়ী বিঝুর দিনে অতিথিদের পরিবেশন করা হয়েছে।

 

মুল বিঝু আর গজ্জ্যাপজ্জ্যা বিঝু দিনে ‘পাজন’ খাওয়ার জন্য শিশু-কিশোর, তরুণ-তরুণী, ছেলে-বুড়ো সবাই উৎসবের আনন্দে ঘুরে বেড়িয়েছে পাড়া থেকে পাড়ায়, গ্রাম থেকে গ্রামে, এক পাহাড় থেকে আরেক পাহাড়ে।

 

চাকমা, মার্মারা, সাঁওতালরা সম্প্রদায়ের লোকজন পাজনকে বলে গন্দ। ত্রিপুরা সম্পদায়ের লোকেরা বলে পাজনকে বলে লাবারা। যে সম্প্রদায়ের লোকজন যে নামেই ডাকুক না কেন সকল সম্প্রদায়ের ঐতিহ্য একই।

 

গৃহীনি অংক্রাইয়ো মার্মা বলেন, বাসায় অন্যান্য দিনে পাক করা হলে বলা হয় গন্দ। আর বিঝুর দিনে বলা হয় পাজন। শিক্ষিকা মিতু চাকমা, অংক্রাইয়ো মার্মা বলেন, অন্যান্য বছরে মতো এ বছরও গ্রামে গ্রামে সু-স্বাদু পাঁচন তরকারী রান্নার প্রতিযোগিতা চলেছে। কারটা বেশী সু-স্বাদু হয়েছে তা বলা মুশকিল। পাজন রান্না শেষ হওয়ার পর পারই পাজন খাওয়ার জন্য আহবান করেছি।

--হিলবিডি২৪/সম্পাদনা/সিআর.

 

 

আর্কাইভ