• Hillbd newsletter page
  • Hillbd rss page
  • Hillbd twitter page
  • Hillbd facebook page
সর্বশেষ
পার্বত্য এলাকায় মোনঘর প্রতিষ্ঠানটি একটি বাতিঘর-দীপংকর তালুকদার এমপি                    সুভাষ চাকমা সভাপতি, পিন্টু চাকমা সাধারণ সম্পাদক ও ক্লিন চাকমা সাংগঠনিক সম্পাদক নির্বাচিত                    চন্দ্রঘোনায় শিক্ষক-শিক্ষিকাদের নিয়ে আরএইচস্টেপের সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত                    পানছড়িতে পৌনে নয় কোটি টাকার প্রকল্প নেওয়া হয়েছে--বাসন্তী চাকমা এমপি                    রাঙামাটিতে পার্বত্য চট্টগ্রাম এলাকায় পানীয় জলের উৎস উন্নয়নের লক্ষ্যে জেলা পর্যায়ে এ্যাডভোকেসী সভা                    পার্বত্যাঞ্চলের প্রান্তিক জনগোষ্ঠীদের মৌলিক অধিকার নিশ্চিত করতে সরকার কাজ করে যাচ্ছে                    রাঙামাটি প্রাণীসম্পদ দপ্তরে জেলা পরিষদের অর্থায়নে ভেটেরিনারি ঔষুধ বিতরণ                    রাঙামাটি পৌরসভার ভারপ্রাপ্ত মেয়রের দায়িত্ব পেলেন জামাল উদ্দিন                    পানছড়িতে ইপসা ‘শো’ প্রকল্পের পুরস্কার বিতরণ ও সম্মাননা প্রদান                    বাঘাইছড়িতে দুর্বৃত্তদের গুলিতে এমএন লারমা গ্রুপের জনসংহতি সমিতির দুই কর্মী নিহত                    রাঙামাটিতে অ্যাকটিভ মাদার্স ফোরাম এর ভূমিকা ও করণীয় শীর্ষক কর্মশালা                    রাঙামাটিতে ৫৮ শতক জমির মালিকানা নিয়ে দুই দেওয়ানের পাল্টাপাল্টি সংবাদ সম্মেলন                    রাঙামাটিতে ধুমপান করার দায়ে ৬ব্যক্তিকে জরিমানা                    রুমা থেকে ৬ গ্রামবাসীকে অপহরণ করেছে দুর্বৃত্তরা                    রাঙামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যানের সাথে গুর্খা সম্প্রদায়ের সৌজন্য সাক্ষাৎ                    বিলাইছড়িতে বেতের ঝুড়ি ও পুঁতির শোপিস তৈরি প্রশিক্ষণ শুরু                    বিলাইছড়িতে মাদক, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ প্রতিরোধ কর্মশালা                    কাপ্তাইয়ে বঙ্গবন্ধু অনুর্ধ্ব ১৭ ফুটবল টুর্নামেন্টে চ্যাম্পিয়ন কাপ্তাই ইউনিয়ন পরিষদ                    ভূমি দখলদারদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা না নিলে মঙ্গলবার রাঙামাটিতে সড়ক অবরোধ                    ভুমি বিরোধ নিয়ে রাঙামাটি শহরের কলেজ গেটে উত্তেজনা                    যুগান্তরের রাঙামাটি প্রতিনিধি মা’য়ের পরলোগমন                    
 

কাপ্তাইয়ে ক্ষুদে বিজ্ঞানীর আবিস্কার নেশা জাতীয় দ্রব্য পান করে গাড়ি চালালেই জানাবে সর্তকবার্তা

কাপ্তাই প্রতিনিধি : হিলবিডি টোয়েন্টিফোর ডটকম
Published: 10 Jul 2019   Wednesday

কাপ্তাইয়ের বাংলাদেশ নৌ-বাহিনী স্কুল এন্ড কলেজের অষ্টম শ্রেণীর মেধাবী  ছাত্র মীর শাহরিয়া ইসলাম সাকিব নামের ক্ষুদে বিজ্ঞানী ‘‘অ্যালকোহল ডিটেক্টর এন্ড অটোসি-সিকোরেটি’’ নামক একটি যন্ত্র উদ্ভাবন করে  সকলকে তাক লাগিয়ে দিয়ে জেলা পর্যায়ে পুরস্কার ছিনিয়ে এনেছে।

 

ক্ষুদে বিজ্ঞানির তৈরিকৃত এ যন্ত্রটি এয়ার পোর্ট,হাসপাতাল, যাত্রীবাহি গাড়ি,স্কুল,কলেজ,মাদ্রাসা,কারখানা,অফিসসহ গুরুত্বপূর্ণ যে কোন স্থানে স্থাপন করা হলে কেউ যদি অ্যালকোহল বা নেশা জাতীয় দ্রবাদি পান করে বা বহন করে তাহলে যন্ত্রটি আগাম বার্তা দিয়ে সর্তক করে দিবে। এসর্তক বার্তার কারনে সহজে বহনকারিকে শনাক্ত করা যাবে। এবং বড় ধরনের বিপদ এড়ানো যাবে ।

 

 এ যন্ত্রটির একটি প্রসেসর, সেন্সর ও একটি ডিসপ্লে বাজানো (স্পিকার) রয়েছে। যখন এযন্ত্রটির আয়ত্বের ভেতর কেউ অ্যালকোহল জাতীয় দ্রব্য পান করে প্রবেশ করবে তখনই এ সেন্সরটি তা সহজে শনাক্ত করে  বেজে উঠবে । এর পরপরই প্রসেসরের মাধ্যমে তথ্য গুলো এনালাইস করে ডিসপ্লেতে প্রদর্শন করবে।যদি যন্ত্রটি গাড়ি বা যে কোন যানচলাচলের সাথে ব্যবহার করা হয় তখন কোন চালক নেশা বা মদ্য পান করে গাড়ি চালালে দ্রুত সেন্সরটি বেজে উঠে সকলকে সর্তক করে দিবে।

 

 অ্যালকোহল ব্যবহার করে গাড়ী চালানোর ফলে নিত্যদিন যেসব মর্মান্তিক দূর্ঘটনা ঘটে সেগুলো হতে  প্রাণে রক্ষা পাওয়া যাবে।

 

এদিকে, ক্ষুদ্রে বিজ্ঞানি মীর শাহরিয়া ইসলাম সাকিব বলেন, এ যন্ত্রটি তৈরি করতে আমার ২ হাজার পাঁচশত টাকা  খরচ হয়েছে। আমার তিন বন্ধু রায়হান,ইমরান ও সাইফ একাজে আমাকে সহযোগিতা করেছে।

 

 বর্তমানে দেশের মধ্যে প্রতিনিয়ত দূর্ঘটনা ঘটে চলছে। এসব ব্যবহারের ফলে অনেক স্কুল,কলেজ শিক্ষার্থীসহ বহু মানুষ প্রাণ হারাচ্ছে। অতিগুরুত্বপূর্ণ এসব বিষয় চিন্তা করে এটি তৈরি করেছি। এছাড়া প্রতিনিয়ত বখাটেরা নেশা করে স্কুল-কলেজে শিক্ষার্থীদের ইভটিজিং করছে। যন্ত্রটি এক্ষেত্রেও ব্যবহার করে বখাটেদের চিহ্নিত করে দূর্ঘটনা এড়ানো সম্ভব। সাকিব তার নিজস্ব উদ্ভাবনী আবিস্কার করে কাপ্তাই উপজেলা পর্যায়ে ও রাঙ্গামাটি জেলা পর্যায়ে বিজ্ঞান মেলায় দ্বিতীয় পুরস্কার অর্জন করেছে।

 

ক্ষুদে বিজ্ঞানীর ইচ্ছে এসব কর্মসুচি নিয়ে কাজ করা এবং বড় হয়ে কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ার হওয়া। তার বাবা একজন বনপ্রহরী রফিকুল ইসলাম মীর সেও  চায় তার ছেলে একজন কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ার হোক। আর মা গৃহিনী শারমিন আক্তার চায় ছেলে বড় হয়ে ডাক্তার হবে। প্রতিদিন অনেক লোক ও বন্ধুরা এ ক্ষুদে বিজ্ঞানির আবিস্কারটি দেখতে আসে। এদিকে স্কুলের শিক্ষকরাও সাকিবের  এ অবিস্কার দেখে অনেক খুশি।  

--হিলবিডি২৪/সম্পাদনা/সিআর.

 

এই বিভাগের সর্বশেষ
আর্কাইভ